ঢাকা ০৫:০৯ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

না’গঞ্জে তুচ্ছ ঘটনায় যুবদলের দু’গ্রুপে দফায় দফায় সংঘর্ষ 

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৪:৫১:০০ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৮ জুলাই ২০২৩ ৭১ বার পড়া হয়েছে

স্ট্যাফ করেসপন্ডেন্ট।।

 

ঢাকা বিভাগীয় তারুণ্যের সমাবেশকে ঘিরে নারায়ণগঞ্জ মহানগর যুবদলের লিফলেট বিতরণকে কেন্দ্র করে সিদ্ধিরগঞ্জ থানা যুবদল নেতা শহিদুল্লাহ ও শেখ অপু গ্রুপের মধ্যে দফায় দফায় সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। সংঘর্ষের ঘটনায় যুবদল নেতা অপু গ্রুপের, সাব্বির আহম্মেদ হৃদয় এবং শহিদুল্লাহ সহ পাঁচজন আহত হয়েছে বলে জানা গেছে।

সোমবার (১৭ জুলাই) বিকেলে নারায়ণগঞ্জ শহরের প্রানকেন্দ্র চাষাঢ়া মোড়ে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এসময়ে লাঠিসোটা হাতে সিদ্ধিরগঞ্জ থানা যুবদলের দুই গ্রুপ প্রকাশ্যে সংঘর্ষে জড়িয়ে পরে। এক পর্যায়ে এক যুবদল নেতাকে সড়কে ফেলে বেধড়ক লাঠিপেটা ও লাথি মারতে থাকে অপর গ্রুপের নেতাকর্মীরা।

প্রসঙ্গ উল্লেখ্য যে, পূর্ব নির্ধারিত ২২ জুলাই ঢাকা বিভাগীয় তারুণ্যে সমাবেশ সফল করার লক্ষ্যে মহানগর যুবদলের পথসভা অনুষ্ঠানের লিফলেট বিতরণ আয়োজন করা হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন কেন্দ্রীয় যুবদলের সহ-সভাপতি গোলাম মোস্তফা সাগর।এরপর শহরের খানপুর হাসপাতাল মোড় থেকে লিফলেট বিতরণ শুরু করে মহানগর যুবদল।এসময় লিফলেট বিতরণে প্রথম সারিতে দাঁড়ানোকে কেন্দ্র করে যুবদল নেতা শেখ অপুর সাথে যুবদল নেতা শহিদুল্লাহ বাকবিতন্ডায় জড়িয়ে পরেলে। লিফলেট বিতরণের শুরুতেই বিশৃঙ্খলা শুরু হয় সৃষ্টি হয় । ওই সময় কেন্দ্রীয় যুবদলের নেতৃবৃন্দের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি সামাল দিয়ে শান্ত করে।পথসভা শেষে ফের যুবদল নেতা শেখ অপুর তার সমর্থকরা চাষাঢ়া মোড়ে অবস্থান নেয় একপর্যায়ে যুবদল নেতা শহিদুল্লাহর উপর অতর্কিত হামলা চালালে দুই গ্রুপ সংঘর্ষে জড়িয়ে পরলে শেখ অপুর সমর্থকদের উপর মারাত্মক হামলা চালায়। এসময় শেখ অপু, তার ছোট ভাই সাব্বির আহম্মেদ হৃদয় এবং শহিদুল্লাহসহ ৫/৬ জন আহত হয়।

এঘটনায় যুবদল নেতা শেখ অপু বলেন, আমাকে হত্যা উদ্দেশ্যেই হামলা চালিয়েছে। মহানগর যুবদলের আহ্বায়ক মমতাউদ্দিন সমর্থক শহিদুল্লাহ নেতৃত্বে ২০/২৫ জন এ হামলা চালায়।

অপরদিকে যুবদল নেতা শহিদুল্লাহ বলেন, যুবদলের লিফলেট বিতরণ কর্মসূচি শেষে  চাষাঢ়া মোড়ে শেখ অপুর নেতৃত্বে তার ছোট ভাইসহ ২০/৩০ জন আমার উপর লাঠিসোটা নিয়ে হামলা চালায়।

নারায়ণগঞ্জ মহানগর যুবদলের সদস্য সচিব মনিরুল ইসলাম সজল বলেন, মহানগর যুবদলের লিফলেট বিতরণ অনুষ্ঠান শেষে চাষাড়ায় আমাদের যুবদলের কর্মীদের সঙ্গে ভুল বুঝাবুঝির একপর্যায়ে নিজেদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। বিষয়টি আমরা তদন্ত করে দোষীদের বিরুদ্ধে সাংগঠনিকভাবে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

না’গঞ্জে তুচ্ছ ঘটনায় যুবদলের দু’গ্রুপে দফায় দফায় সংঘর্ষ 

আপডেট সময় : ০৪:৫১:০০ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৮ জুলাই ২০২৩

স্ট্যাফ করেসপন্ডেন্ট।।

 

ঢাকা বিভাগীয় তারুণ্যের সমাবেশকে ঘিরে নারায়ণগঞ্জ মহানগর যুবদলের লিফলেট বিতরণকে কেন্দ্র করে সিদ্ধিরগঞ্জ থানা যুবদল নেতা শহিদুল্লাহ ও শেখ অপু গ্রুপের মধ্যে দফায় দফায় সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। সংঘর্ষের ঘটনায় যুবদল নেতা অপু গ্রুপের, সাব্বির আহম্মেদ হৃদয় এবং শহিদুল্লাহ সহ পাঁচজন আহত হয়েছে বলে জানা গেছে।

সোমবার (১৭ জুলাই) বিকেলে নারায়ণগঞ্জ শহরের প্রানকেন্দ্র চাষাঢ়া মোড়ে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এসময়ে লাঠিসোটা হাতে সিদ্ধিরগঞ্জ থানা যুবদলের দুই গ্রুপ প্রকাশ্যে সংঘর্ষে জড়িয়ে পরে। এক পর্যায়ে এক যুবদল নেতাকে সড়কে ফেলে বেধড়ক লাঠিপেটা ও লাথি মারতে থাকে অপর গ্রুপের নেতাকর্মীরা।

প্রসঙ্গ উল্লেখ্য যে, পূর্ব নির্ধারিত ২২ জুলাই ঢাকা বিভাগীয় তারুণ্যে সমাবেশ সফল করার লক্ষ্যে মহানগর যুবদলের পথসভা অনুষ্ঠানের লিফলেট বিতরণ আয়োজন করা হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন কেন্দ্রীয় যুবদলের সহ-সভাপতি গোলাম মোস্তফা সাগর।এরপর শহরের খানপুর হাসপাতাল মোড় থেকে লিফলেট বিতরণ শুরু করে মহানগর যুবদল।এসময় লিফলেট বিতরণে প্রথম সারিতে দাঁড়ানোকে কেন্দ্র করে যুবদল নেতা শেখ অপুর সাথে যুবদল নেতা শহিদুল্লাহ বাকবিতন্ডায় জড়িয়ে পরেলে। লিফলেট বিতরণের শুরুতেই বিশৃঙ্খলা শুরু হয় সৃষ্টি হয় । ওই সময় কেন্দ্রীয় যুবদলের নেতৃবৃন্দের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি সামাল দিয়ে শান্ত করে।পথসভা শেষে ফের যুবদল নেতা শেখ অপুর তার সমর্থকরা চাষাঢ়া মোড়ে অবস্থান নেয় একপর্যায়ে যুবদল নেতা শহিদুল্লাহর উপর অতর্কিত হামলা চালালে দুই গ্রুপ সংঘর্ষে জড়িয়ে পরলে শেখ অপুর সমর্থকদের উপর মারাত্মক হামলা চালায়। এসময় শেখ অপু, তার ছোট ভাই সাব্বির আহম্মেদ হৃদয় এবং শহিদুল্লাহসহ ৫/৬ জন আহত হয়।

এঘটনায় যুবদল নেতা শেখ অপু বলেন, আমাকে হত্যা উদ্দেশ্যেই হামলা চালিয়েছে। মহানগর যুবদলের আহ্বায়ক মমতাউদ্দিন সমর্থক শহিদুল্লাহ নেতৃত্বে ২০/২৫ জন এ হামলা চালায়।

অপরদিকে যুবদল নেতা শহিদুল্লাহ বলেন, যুবদলের লিফলেট বিতরণ কর্মসূচি শেষে  চাষাঢ়া মোড়ে শেখ অপুর নেতৃত্বে তার ছোট ভাইসহ ২০/৩০ জন আমার উপর লাঠিসোটা নিয়ে হামলা চালায়।

নারায়ণগঞ্জ মহানগর যুবদলের সদস্য সচিব মনিরুল ইসলাম সজল বলেন, মহানগর যুবদলের লিফলেট বিতরণ অনুষ্ঠান শেষে চাষাড়ায় আমাদের যুবদলের কর্মীদের সঙ্গে ভুল বুঝাবুঝির একপর্যায়ে নিজেদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। বিষয়টি আমরা তদন্ত করে দোষীদের বিরুদ্ধে সাংগঠনিকভাবে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।