ঢাকা ১০:২৩ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বরগুনার সাবেক ডিসির সঙ্গে এক নারীর অন্তরঙ্গ ভিডিও ভাইরাল

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৫:২৫:১২ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৮ অক্টোবর ২০২৩ ১৩৭ বার পড়া হয়েছে

ফেসবুকে পরিচয় অত:পর বিয়ের প্রতিশ্রুতিতে অনেকবার শারীরিক সম্পর্কে লিপ্ত! 

অনলাইন ডেস্ক।।
এক নারীর সঙ্গে বরগুনার সাবেক জেলা প্রশাসক (ডিসি) হাবিবুর রহমানের তিনটি অনৈতিক কাজের ভিডিও ছড়িয়ে পড়েছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে। ভিডিওতে ডিসিকে নিজ বাসভবনের একটি শয়ন কক্ষের খাটে এক নারীর সঙ্গে অন্তরঙ্গ মুহূর্তে আলাপচারিতা দেখা যায়।

ভিডিওগুলো ফেসবুক ম্যাসেঞ্জার, ইমো, হয়াটসঅ্যাপসহ নানা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে জেলা ও দেশজুড়ে আলোচনা সমালোচনার ঝড় ওঠে। একজন উচ্চ পদমর্যাদার বিসিএস কর্মকর্তার এমন অনৈতিক কাজে সমালোচনা ও নিন্দার পাশাপাশি মানুষ কৌতূহল নিয়ে এসব ভিডিও দেখার চেষ্টা করছেন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে।

এদিকে ছড়িয়ে পড়া প্রথম ভিডিওতে শোনা যাচ্ছে, ‘দুই দিন পর্যন্ত তোমার এত ফোন আসে। ভালোভাবে তোমার সঙ্গে কথাও বলা যায় না।’ দ্বিতীয় ভিডিওতে হাসি-তামাশা করে ওই নারীর কপালে চুমু দিতে দেখা যায় জেলা প্রশাসক (ডিসি) হাবিবুর রহমানকে। পাশাপাশি লাল কভার বালিশে শুয়ে গল্প করছেন তারা দু’জন। তৃতীয় ভিডিওটি হালকা অন্ধকার দেখা যায়। সেখানেও অন্তরঙ্গ পরিবেশ। আনন্দ-ফুর্তির শব্দ শোনা গেছে ওই ভিডিওতে ।

বরগুনা জেলা প্রশাসক কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, ২০২০ সালের ১৭ ডিসেম্বর হাবিবুর রহমান বরগুনার জেলা প্রশাসক( ডিসি) হিসেবে যোগদান করেন। আড়াই বছর পর ২০২৩ সালের ৯ জুলাই এক প্রজ্ঞাপনের মাধ্যমে তাকে সরিয়ে উপ-সচিব পদে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা শাখায় পদায়ন করা হয়। তিনি নবাগত জেলা প্রশাসক মোহা. রফিকুল ইসলামের কাছে ৩০ জুলাই দায়িত্ব হস্তান্তর করেন। ৪ সেপ্টেম্বর উপ-সচিব পদ থেকে যুগ্মসচিব পদে পদোন্নতিও পেয়েছেন এ হাবিবুর রহমান।

সূত্রে আরও জানা যায়, ওই নারীর স্বামী ছিলেন একজন পাইলট। তাদের ঘরে একটি মেয়েও রয়েছে। স্বামী মারা যাওয়ার পর ডিসির সঙ্গে তার ফেসবুকে প্রথম পরিচয় হয়। ডিসি তাকে বিয়ের প্রতিশ্রুতি দেন এবং অনেকবার তার সাথে শারীরিক সম্পর্কে লিপ্ত হন। দুজন বিভিন্ন দর্শনীয় স্থানেও ঘুরেছেন বহুবার।

ভিডিওগুলো জেলা প্রশাসক( ডিসি) বাংলোর পূর্বপাশের দোতলার একটি কক্ষের বলে জানা গেছে।

এ ঘটনার বিষয়ে জানতে হাবিবুর রহমানের যোগাযোগের চেষ্টা করেও তাকে পাওয়া যায়নি।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

বরগুনার সাবেক ডিসির সঙ্গে এক নারীর অন্তরঙ্গ ভিডিও ভাইরাল

আপডেট সময় : ০৫:২৫:১২ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৮ অক্টোবর ২০২৩

ফেসবুকে পরিচয় অত:পর বিয়ের প্রতিশ্রুতিতে অনেকবার শারীরিক সম্পর্কে লিপ্ত! 

অনলাইন ডেস্ক।।
এক নারীর সঙ্গে বরগুনার সাবেক জেলা প্রশাসক (ডিসি) হাবিবুর রহমানের তিনটি অনৈতিক কাজের ভিডিও ছড়িয়ে পড়েছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে। ভিডিওতে ডিসিকে নিজ বাসভবনের একটি শয়ন কক্ষের খাটে এক নারীর সঙ্গে অন্তরঙ্গ মুহূর্তে আলাপচারিতা দেখা যায়।

ভিডিওগুলো ফেসবুক ম্যাসেঞ্জার, ইমো, হয়াটসঅ্যাপসহ নানা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে জেলা ও দেশজুড়ে আলোচনা সমালোচনার ঝড় ওঠে। একজন উচ্চ পদমর্যাদার বিসিএস কর্মকর্তার এমন অনৈতিক কাজে সমালোচনা ও নিন্দার পাশাপাশি মানুষ কৌতূহল নিয়ে এসব ভিডিও দেখার চেষ্টা করছেন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে।

এদিকে ছড়িয়ে পড়া প্রথম ভিডিওতে শোনা যাচ্ছে, ‘দুই দিন পর্যন্ত তোমার এত ফোন আসে। ভালোভাবে তোমার সঙ্গে কথাও বলা যায় না।’ দ্বিতীয় ভিডিওতে হাসি-তামাশা করে ওই নারীর কপালে চুমু দিতে দেখা যায় জেলা প্রশাসক (ডিসি) হাবিবুর রহমানকে। পাশাপাশি লাল কভার বালিশে শুয়ে গল্প করছেন তারা দু’জন। তৃতীয় ভিডিওটি হালকা অন্ধকার দেখা যায়। সেখানেও অন্তরঙ্গ পরিবেশ। আনন্দ-ফুর্তির শব্দ শোনা গেছে ওই ভিডিওতে ।

বরগুনা জেলা প্রশাসক কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, ২০২০ সালের ১৭ ডিসেম্বর হাবিবুর রহমান বরগুনার জেলা প্রশাসক( ডিসি) হিসেবে যোগদান করেন। আড়াই বছর পর ২০২৩ সালের ৯ জুলাই এক প্রজ্ঞাপনের মাধ্যমে তাকে সরিয়ে উপ-সচিব পদে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা শাখায় পদায়ন করা হয়। তিনি নবাগত জেলা প্রশাসক মোহা. রফিকুল ইসলামের কাছে ৩০ জুলাই দায়িত্ব হস্তান্তর করেন। ৪ সেপ্টেম্বর উপ-সচিব পদ থেকে যুগ্মসচিব পদে পদোন্নতিও পেয়েছেন এ হাবিবুর রহমান।

সূত্রে আরও জানা যায়, ওই নারীর স্বামী ছিলেন একজন পাইলট। তাদের ঘরে একটি মেয়েও রয়েছে। স্বামী মারা যাওয়ার পর ডিসির সঙ্গে তার ফেসবুকে প্রথম পরিচয় হয়। ডিসি তাকে বিয়ের প্রতিশ্রুতি দেন এবং অনেকবার তার সাথে শারীরিক সম্পর্কে লিপ্ত হন। দুজন বিভিন্ন দর্শনীয় স্থানেও ঘুরেছেন বহুবার।

ভিডিওগুলো জেলা প্রশাসক( ডিসি) বাংলোর পূর্বপাশের দোতলার একটি কক্ষের বলে জানা গেছে।

এ ঘটনার বিষয়ে জানতে হাবিবুর রহমানের যোগাযোগের চেষ্টা করেও তাকে পাওয়া যায়নি।